এমনিতে ডান হাতকে বেশি পবিত্র মনে করা হয়। কিন্তু বাঁ হাতের কড়ে আঙুলেই দেওয়া হয় ভাইভোঁটা। কিন্তু কেন? সনাতন ধর্মের এই রীতির পিছনে মনে করা হয় কড়ে আঙুল মহাশূন্যের প্রতীক।

আর সেই আঙুলেই প্রকৃতিস্বরূপা নারী ফোঁটা দেন ভাইয়ের মঙ্গল কামনায়। শাস্ত্রের ব্যাখ্যা বলছে— মানুষের হাতের পাঁচটি আঙুল পঞ্চভূতের প্রতীক।

ক্ষিতি, অপ, তেজ, মরুৎ, ব্যোমের মধ্যে শেষের ব্যোমই হচ্ছে কড়ে আঙুল। উদার ভালবাসার প্রতীক হিসেবে তাই কড়ে আঙ্গুলকেই পবিত্র মনে করা হয় ভাইফোঁটা উৎসবের ক্ষেত্রে।

এই ব্যাপারে শাস্ত্র বলছে— ভাই ও বোনের মধ্যে পারস্পরিক ভালবাসা যেন মহাশূন্যের মতো অসীম হয়। ভাইফোঁটার অঙ্গ শুধু ফোঁটাই নয়। সেই সঙ্গে ভুরিভোজ আর উপহার দেওয়া নেওয়া তো রয়েছেই। বড় ভাইয়ের থেকে উপহার পাওয়ার কিংবা দিদির থেকে উপহার নেওয়ারও তিথি ভ্রাতৃদ্বিতীয়া।

সোর্সঃ সংগৃহিত